Yunus and IOC President Discuss on Adding Social Dimension to Sports World

Yunus Centre Press Release (23 January, 2017)


The President of International Olympic Committee Thomas Bach  presents a specially autographed Olympic torch from Rio Olympics 2016 to Nobel Laureate Professor Muhammad Yunus  on January 23, 2017 as a token of thanks for his participation as a torch-bearer in the Rio Olympics last year.

Davos, January 23.

In his final day in Davos, Nobel Laureate Professor Muhammad Yunus was invited to a lunch  by President of International Olympic Committee Thomas Bach to discuss further about collaboration between Yunus Centre and IOC  to mainstream social business within IOC especially focused on athletes particularly retired athletes through sports clubs, sports federations and National Olympic Committees. Mr Bach also invited Yunus as his special guest to the opening of the Winter Olympic Games in Korea in February 2018.  He presented an Olympic torch from Rio Olympics of 2016 to Yunus specially autographed by him by way of thanks for Yunus's participation as a torch-bearer in  the Rio Olympics. It may be recalled that during Rio Olympics Yunus addressed all the members of the IOC as the keynote speaker at their annual meeting in Rio in July 2016. He was invited to attend the Olympic Games in Rio as a special guest of the IOC President.

 

Professor Yunus spoke in three panels during WEF week. He addressed a special session on the Head and Heart of Philanthropy organized by WEF, and a morning session organized by Seneca Women on "Unleashing the Power of Women Entrepreneurs". This was done in an interview format where author and activist Kim Azzarelli interviewed Yunus on the future direction  of women entrepreneurship.  Other speakers at the session were Amb Melanne Verveer, social activist and lawyer Cherie Blair, and Mr. Brian T. Moynihan CEO of Bank of America. Yunus highlighted the experience of Grameen America which will reach in 2017 a total US 1 billion in loans to 100,000 borrowers after mere 10 years of operation. He invited the audience to participate in NY on September 23 to celebrate the Tenth Anniversary of Grameen America at Metropolitan Museum of Art, and help set the goal for next ten years. He also addressed a special Tata Communications event dedicated to reaching the bottom three billion especially women through telecommunications and the internet. He drew the attention of the audience about the most frightening trend of wealth concentration where only the eight richest  people have more wealth than bottom fifty percent of people. He urged the audience to mobilise creativity and energy to reverse the process.

Professor Yunus participated in the board meeting of Schwab Foundation for Social Entrepreneurship which was created by WEF Founder Klaus Schwab and led by his wife Hilde to promote social entrepreneurship. The Foundation gives awards and global prizes in this field every year. Yunus has been a founding member of the board since it was created 15 years ago.

He was invited by WEF to an exclusive lunch attended by 50 specially selected global leaders where important global issues and challenges were discussed. It is attended by several Prime Ministers including those of Norway, Portugal, Ireland and Ethiopia the Managing Directors of IMF, President of ADB, AfDB and IADB, Governor Of Central Bank of Japan, HM King Philip and Queen Mathilde of Belgium and HM Queen Maxima of the Netherlands. The meeting was opened by UN Secretary General Antonio Guterres and chaired by WEF Chairman Klaus Schwab.

During the week Yunus  was interviewed by Forbes magazine on their 100th year anniversary. He was also invited by Facebook to make a broadcast via Facebook Live from  WEF 2017 in Davos on the issue of wealth concentration  to his million plus followers on Facebook. He was also interviewed by Hub Culture Davos.

----- End-----

 

প্রেস রিলিজ

ক্রীড়া জগতে সামাজিক মাত্রা যোগ করতে প্রফেসর ইউনূস ও আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির সভাপতির মধ্যে বৈঠক।

দাভোস, ২৩ জানুয়ারী

দাভোসে তাঁর অবস্থানের সর্বশেষ দিন নোবেল লরিয়েট প্রফেসর মুহাম্মদ ইউনূসকে মধ্যাহ্নভোজে আমন্ত্রণ জানান আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির সভাপতি টমাস বাক। খেলোয়াড়দেরকে বিশেষ করে অবসরে যাওয়া খেলোয়াড়দেরকে স্পোর্টস ক্লাব, স্পোর্টস ফেডারেশন ও জাতীয় অলিম্পিক কমিটিসমূহের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির মধ্যে মূলধারার সামাজিক ব্যবসাকে নিয়ে আসতে ইউনূস সেন্টার ও আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির মধ্যকার সহযোগিতা বিষয়ে আরো বিস্তারিত আলোচনা করতে সভাপতি বাক প্রফেসর ইউনূসকে এই আমন্ত্রণ জানান। অলিম্পিক সভাপতি ফেব্রুয়ারী ২০১৮ কোরিয়ায় অনুষ্ঠেয় শীতকালীন অলিম্পিক গেমসে তাঁর বিশেষ অতিথি হিসেবেও প্রফেসর ইউনূসকে আমন্ত্রণ জানান। রিও অলিম্পিকে মশাল বাহক হিসেবে প্রফেসর ইউনূসের অংশগ্রহণের জন্য অলিম্পিক সভাপতি তাঁর অটোগ্রাফ সম্বলিত রিও ২০১৬ অলিম্পিক গেমসের একটি বিশেষ মশাল প্রফেসর ইউনূসকে উপহার দেন। স্মরণ করা যেতে পারে যে, গত জুলাই ২০১৬ রিও-তে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির বার্ষিক সভায় প্রফেসর ইউনূস কমিটির সকল সদস্যর উদ্দেশ্যে সভার মূল ভাষণ প্রদান করেছিলেন। আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির সভাপতির বিশেষ আমন্ত্রণক্রমে প্রফেসর ইউনূস রিও ২০১৬ অলিম্পিকে যোগদান করেছিলেন।

বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম সপ্তাহে প্রফেসর ইউনূস ৩টি প্যানেলে বক্তব্য রাখেন। তিনি বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম আয়োজিত “হেড এন্ড হার্ট অব ফিলানথ্রপি” শীর্ষক একটি বিশেষ সেশনে বক্তৃতা দেন। এছাড়াও তিনি সেনেকা উইমেন আয়োজিত “আনলিশিং দি পাওয়ার অব উইমেন অনট্রাপ্রিনিয়র” শীর্ষক আরেকটি প্রাতঃকালীন সেশনেও বক্তব্য রাখেন। এই সেশনটি ইন্টারভিউ আকারে পরিচালিত হয় যেখানে বিশিষ্ট লেখিকা ও সমাজকর্মী কিম আজারেল্লি নারী উদ্যোক্তাদের ভবিষ্যত গন্তব্য বিষয়ে প্রফেসর ইউনূসের সাক্ষাৎকার গ্রহণ করেন। এই সেশনের অন্য বক্তারা ছিলেন রাষ্ট্রদূত মেলানী ভেরভিয়ের, সমাজকর্মী ও আইনজীবি চেরী ব্লেয়ার এবং ব্যাংক অব আমেরিকার প্রধান নির্বাহী ব্রায়ান টি. ময়নিহান। প্রফেসর ইউনূস গ্রামীণ আমেরিকার অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন যা ২০১৭ সালে অর্থাৎ প্রতিষ্ঠার মাত্র ১০ বছরের মধ্যে ১ লক্ষ ঋণীর কাছে ১০০ কোটি মার্কিন ডলার ঋণ সুবিধা পৌঁছে দিচ্ছে। তিনি ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭ নিউ ইয়র্কের মেট্রোপলিটান মিউজিয়াম অব আর্টে অনুষ্ঠেয় গ্রামীণ আমেরিকার ১০ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে যোগদান করতে এবং গ্রামীণ আমেরিকাকে তার ভবিষ্যৎ লক্ষ্য নির্ধারণে সহায়তা করতে অংশগ্রহণকারীদের আমন্ত্রণ জানান। তিনি টেলিকমিউনিকেশান্স ও ইন্টারনেটের মাধ্যমে পৃথিবীর নিচের দিকের ৩০০ কোটি মানুষের বিশেষ করে মহিলাদের উদ্দেশ্যে নিবেদিত টাটা কমিউনিকেশান্স-এর একটি বিশেষ অনুষ্ঠানেও ভাষণ দেন। তিনি পৃথিবীতে সম্পদ কেন্দ্রীকরণের অত্যন্ত ভয়াবহ অবস্থা সম্পর্কে শ্রোতাদের দৃষ্টি আাকর্ষণ করেন যেখানে মাত্র ৮ জন ব্যক্তির হাতে পৃথিবীর নিচের দিকের অর্ধেক মানুষের চেয়ে বেশী সম্পদ পুঞ্জীভূত হয়েছে। তিনি শ্রোতাদের বলেন যে, তাদের সম্মিলিত শক্তি ও সৃষ্টিশীলতাই এই ভয়াবহ অবস্থাটি উল্টোদিকে ঘুরিয়ে দিতে পারে।

প্রফেসর ইউনূস বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা ক্লাউস শোয়াব কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত এবং সামাজিক উদ্যোগকে এগিয়ে নিতে তাঁর স্ত্রী হিলডে কর্তৃক পরিচালিত “শোয়াব ফাউন্ডেশন ফর সোশ্যাল অনট্রাপ্রিনিয়রশীপ”-এর পরিচালনা পরিষদের একটি সভায় অংশ নেন। এই ফাউন্ডেশন প্রতি বছর এই ক্ষেত্রে পুরস্কার ও গ্লোবাল প্রাইজ দিয়ে থাকে। প্রফেসর ইউনূস ১৫ বছর পূর্বে প্রতিষ্ঠিত এই ফাউন্ডেশনটির প্রতিষ্ঠাকালীন পরিচালকদের একজন।

বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম কর্তৃক বিশেষভাবে নির্বাচিত ৫০ জন বিশ্ব নেতার জন্য আলাদাভাবে আয়োজিত একটি মধ্যাহ্নভোজেও যোগ দেন প্রফেসর ইউনূস যেখানে গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন বৈশ্বিক ইস্যু ও চ্যালেঞ্জ নিয়ে আলোচনা হয়। নরওয়ে, পর্তুগাল, আয়ারল্যা- ও ইথিওপিয়াসহ কয়েকটি দেশের প্রধানমন্ত্রীগণ; আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের ব্যবস্থাপনা পরিচালকগণ; এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক, আফ্রিকান উন্নয়ন ব্যাংক ও আন্তঃআমেরিকান উন্নয়ন ব্যাংকের প্রেসিডেন্টগণ; জাপানের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্ণর; বেলজিয়ামের মহামান্য রাজা ফিলিপ ও রানী মাটিলডে এবং নেদারল্যান্ডসের মহামান্য রানী ম্যাক্সিমাও এই সভায় যোগদান করেন। সভার উদ্বোধন করেন জাতি সংঘের মহাসচিব অ্যান্টোনিও গুতেরেস এবং এতে সভাপতিত্ব করেন বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের চেয়ারম্যান ক্লাউস শোয়াব।

তাঁর সপ্তাহব্যাপী দাভোস সফরের সময়ে বিশ্বখ্যাত ফোর্বস ম্যাগাজিন তার ১০০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে প্রফেসর ইউনূসের সাক্ষাৎকার গ্রহণ করে। এছাড়া ফেসবুক কর্তৃপক্ষ দাভোসে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম ২০১৭ চলাকালীন প্রফেসর ইউনূসকে তাঁর ১০ লক্ষাধিক ফেসবুক অনুসারীর জন্য সম্পদ কেন্দ্রীকরণ বিষয়ে ফেসবুকের মাধ্যমে একটি সরাসরি সম্প্রচারে আমন্ত্রণ জানায়। সোশ্যাল নেটওয়ার্ক সার্ভিস “হাব কালচার দাভোস”ও তাঁর একটি সাক্ষাৎকার গ্রহণ করে।

ছবির ক্যাপশন ২৩ জানুয়ারী ২০১৭ আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির সভাপতি টমাস বাক নোবেল লরিয়েট প্রফেসর মুহাম্মদ ইউনূসকে গত বছর অনুষ্ঠিত রিও অলিম্পিক গেমসে মশালবাহক হিসেবে অংশগ্রহণের জন্য ধন্যবাদের নিদর্শনস্বরূপ বিশেষ অটোগ্রাফ সম্বলিত রিও ২০১৬ অলিম্পিকের একটি মশাল উপহার দেন।

------------

 

hard-extreme.com tellyseries